আজ : ০৫:২৪, জুলাই ৪ , ২০২০, ২০ আষাঢ়, ১৪২৭
শিরোনাম :

নিলা তুমি যেওনাঃবাবুল রহমান

বিশ্ববাংলানিউজ২৪

আপডেট:১২:০৩, জুন ৩ , ২০২০
photo


ভালোবাসা ও পছন্দের মানুষগুলো শ্বাসরোধ করেই থেমে থাকেনা,আমেরিকার জর্জ ফ্লোয়েডের মত মৃত্যু নিশ্চিত করেই যেতে চায়।অনুভূতির জায়গাটি নিয়ে খেলতে আগ্রহী,ভেবে দেখেনা মানুষটি কত কষ্ট পাবে।পাথরের তৈরী মন হলে সেখানে আঘাতে কিছু হবেনা কিন্তু হৃদয়টা যে এমন অল্পতেই নষ্ট হয়,কষ্ট লাগে বড্ড।

নিলার সাথে পরিচয় জর্ডানের ট্রান্জিট লাউন্জে,সেইথেকে টুকটাক মেসেজ দেয়া নেয়া এবং অন্তরঙ্গ।বেশদিন ধরেই আন্তরিকতার সাথে কথাবার্তা মন দেয়া নেয়া চলছে,মাঝেমধ্যে অভিমান এসে হানা দেয় এবং ভালোলাগা মানুষটির সান্নিধ্য না হারাতে যা কিছু প্রয়োজন তা দিয়েই মান ভাঙ্গাতে অস্হীর থাকি তবে ক্লান্ত হইনি কিন্তু সমস্যা হচ্ছে অনুভূতি ও আত্মসম্মান।এই জায়গাতে এতোই দূর্বল এই জায়গার আশপাশ কেউ হাঁটাহাঁটি বা ঘুরঘুর করলেই মানষিক ব্যাঘাত ঘটে।আদর ভালোবাসা কেমন যেন তুচ্ছ মনে হয়,হিসেব কষতে শুরু করি আদৌও কি মানুষটি পছন্দ করে.!

গত তিনদিন ধরে ভীষণ অসুস্হ,নিলা অতি আদরে যত্ন করে ঔষুধ খেতে বলে,কয়টা খাবো কখন খাবো তদারকি করে যাচ্ছে এমনকি আইব্রোফেন না খেতে বারণ করছে।মোবাইল অফ করে বিশ্রাম নিতে বলছে,সময় সময়ে চেক করে নিচ্ছে অনলাইনে কি না অর্থাৎ কড়া ভাষায় ফোন রেখে রেষ্ট নেও।ব্যস ভালোই লাগলো যদিও জ্বর বাড়ছে কিন্ত মনের দিক থেকে সবল নিলার ভালোবাসায়,এটা নিলার ভালোবাসার বহির্প্রকাশ।নিলার উচ্চমাত্রার তদারকি ও ভালোবাসায় সত্যি মুগ্ধ,অনেক সময় বিশেষ উপাধি দিয়ে বাক্য বিনিময়ে প্রতিদান দিতে গিয়ে বিপদে পড়ি।আসলে খুবই স্মার্ট লেডি কিন্তু মাঝেমধ্যে লাজুকতা ভর করে,আমার আবার ক্ষ্যাপাতে বেশ মজা লাগে।এই মজা পছন্দ হলোনা মানলাম তবে এই নিষ্ঠুরভাবে প্রতিবাদ কি সঠিক হলো.!

অপরাধ ছিলো তোমার সুন্দর ছবি দেখে বলেছিলাম গলার নীচ পর্যন্ত যতটুকু দেখা যায় দেখলাম কিন্তু অন্তর্বাস যে দেখতে পেলাম,কোন রংয়ের সেটাও বুঝলাম,বলিনি,কত বড় বিপদ থেকে বেঁচে গেলাম।সামান্য এই মন্তব্য সহজভাবে নিলেনা খুব আশ্চর্য্য হলাম।

আজ দুদিন হলো আর ঔষুধ নিচ্ছিনা নিলার উপর অভিমান করে,নিলাও দিব্বি আয়েশে ফোন নিয়ে সময় কাটাচ্ছে,কোন চিন্তা নেই,মরে গেলে তার কি.! সত্যি বিলিয়ন বিলিয়ন মানুষের মাঝে একজন মারা গেলে কারো কিছু যায় আসে না,ভালোবাসা থাকবে এই ধরণীতে।

আজ আর সহ্য করতে পারছিনা,সকালে চিন্তা করি হাসপাতালে যাবো কিন্তু নিলার অদ্ভুত নিরবতায় আশ্চর্য্য হয়ে ঘরে বসেই রইলাম,ভীষণ জেদী হয়ে বসে রইলাম দেখি নিলা কি করে,এই মূহুর্তে কতটা অমানবিক হলে অভিমান নিয়ে বসে আমার সর্বনাশ ঘটাতে পারে।নিজের শরীরের উপর অত্যাচার করতে লাগলাম,নাহ্ নিলার মন মোটেও কাঁদছে না।প্রশ্ন করি নিজেরে আমি মানুষ কতটুকু চিনি,হয়তো নিলা ভিতরে পুড়ে ছাই হয়ে যাচ্ছে কে জানে।নিলা চাইলে পুরোপুরি সম্পর্ক ছিন্ন করতে পারে কিন্তু সেদিকে যায়না,হয়তো তারও মনটা কাঁদে নিরবে,কষ্ট সহ্য করেও জয়ী হতে চায়,অসুবিধে নেই নিলা আমি আছি হারতে হবেনা।সে চেষ্টা অব্যাহত রাখবো তবে বুঝাতে হবে তুমি পছন্দ করো।

এই তোমরা শোন,আমার মৃত্যুতে নিলাদের মত মানুষের মেকআপ দূরের কথা কাজল ও নষ্ট হবেনা,মৃত্যু সংবাদে প্রথম কাজ হবে হাল্কা মেকআপ নিয়ে ঠোঁট রাঙ্গিয়ে সমুদ্র পাড়ে কিছুটা সময় কাটিয়ে নিজেকে ফ্রেশ করে নেয়া।নিলাদের ভালোবাসার মৃত্যু কি আমার মৃত্যুর সাথে,নিশ্চয়ই না।নিলা আবার কাউকে ভালোবাসবে,বিয়ে করবে সুন্দর অভিনয় করে সংসার সাঁজাবে,বছর শেষে বাচ্চা দেবে,বাচ্চাকে স্কুলে দিয়ে এসে পাশের বাড়ির ভাবীর সাথে আড্ডা দিবে।রাতে ইউটিয়বে ডুবে থাকবে,শনিবার রোববারে সেজেগুজে কোন পার্টিতে আনন্দ উল্লাসে বাকিটা জীবন কেটে দিবে।

নীলপরী নীলারা কখনোই তাজমহল গড়েনি অথবা ভালোবাসার মানুষটাকে না পেয়ে বাকি জীবন একা কাটিয়েছে নজির নেই,ওরা সুন্দর করেই আগামীর স্বপনে বিভোর থাকে।ভালোবাসা মূল্যহীন ওদের কাছে,ভালোবাসা মানে হচ্ছে ছোট্ট ঘরে দুজনের বসতি,নির্জন রাতে বাচ্চা ফুটানোর তীব্র আঁকাঙ্খা কিন্ত এর বাহিরে যে জগত আছে সেটা জানেনা।হ্যাঁ নরনারীর সেই অনুভূতির জায়গা থেকেই ভালোবাসা জাগে এবং অকৃত্রিম ভালোবাসা জাগ্রত রাখতেই দুটি সুন্দর মন প্রয়োজন।অপূর্ণতার অনুভূতি যায় না অনেক অর্জনের পরও তাইতো অপূর্ণতা পিছু ছাড়েনা।ধীরে ধীরে অবহেলা বাসা বাঁধতে শুরু করে অতঃপর দৃষ্টি সীমানার বাহিরে চলে যায় এবং শেষ গন্তব্য দূরত্ব।ছন্দহারা নদীর মত কতপথ চলা যায়,তারও শেষ আছে কোন এক জায়গায় সেটা বেঁচে নেয় সময়ের তাগিদে।

নিলার প্রতি ক্ষোভ দেখানো অন্যায় অবিচার হবে,নিলাও অনেক ভালোবাসে জানি কিন্তু কেন নিজেকে কষ্ট দিয়ে আমাকে শায়েস্তা করতে চায় বুঝিনা,আমার কষ্টের বোঝা অনেক ভারী তারপরও ..!যেখানেই থাকো ভালো থেকো নিলা,তোমায় অনেক ভালোবাসি এবং বাকি দিনগুলো এভাবেই হৃদয়ের আঙ্গিনায় থাকবে।আর শোন প্রতিরাতে গুড নাইট মাই ডিয়ার সুইটি,হেভ এ সুইট ড্রিম বলি,তারপর কি বলি জানো? “দিলাম”।
সকালে সুপ্রভাত ম্যাডাম,দুপুরে গুড আফটার নুন ডার্লিং সবই বলি।ভুলিনা একঝাঁক গোলাপ পাঠাতে সাথে থাকে❤️।
Nila Stay blessed and stay home.

Babul Rohman
02/06/2020

Posted in মতামত


সাম্প্রতিক খবর

জৈন্তাপুরে একই দিনে ভাইরাসে আক্রান্ত ১৬

photo জৈন্তাপুর (সিলেট) প্রতিনিধিঃসিলেট জৈন্তাপুর উপজেলায় কোভিড-১৯ করোনা ভাইরাসে আক্রন্তের সংখ্যা দিন দিন বেড়েই চলছে। বর্তমানে জৈন্তাপুরে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৮৫জন। তার মধ্যে মৃত্যু বরণ করেছে ১জন, সুস্থ্য হয়েছেন ৪৮জন, নতুন নমুনা সংগ্রহ ৫ জন, ফলাফলের অপেক্ষায় রয়েছে ২২জন। জৈন্তাপুরে কোভিড-১৯ করোনা ভাইরাসের রিপোর্ট কয়েকদিন থেকে না আসায় থমকে ছিল ফলাফল, বর্তমানে ১৮ দিন পরে

বিস্তারিত

0 Comments

Add new comment